ধুনটে বর যাত্রীবাহী বাস উল্টে নদী‌তে নিহত ১ আহত ১০


প্রকাশের সময় : ফেব্রুয়ারী ১৫, ২০২১, ৪:৫৫ অপরাহ্ন / ১৭৩
ধুনটে বর যাত্রীবাহী বাস উল্টে নদী‌তে নিহত ১ আহত ১০

ফজলে রাব্বী মানু, ধুনট (বগুড়া) প্রতিনিধিঃ

বগুড়ার ধুনট উপজেলায় বর যাত্রীবাহী বাস উল্টে নদীতে পড়ে সাধন চন্দ্র (৭০) নামের একজন নিহত হয়েছেন। রবিবার সন্ধ্যা ৭টার দিকে ধুনট উপজেলার রুদ্রবাড়িয়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। নিহত সাধন উপজেলার পীরহাটী গ্রামের গদাই চন্দ্রের ছেলে। এঘটনায় আরও প্রায় ১০জন আহত হয়েছেন।

পুলিশ ও গ্রামবাসী জানান, রুদ্রবাড়িয়া গ্রামের পলান কুমারের ছেলে তাপস কুমার রবিবার সন্ধ্যায় বর যাত্রী নিয়ে শেরপুরের ঘাটপার এলাকায় বিয়ে করার উদ্দেশ্যে বাড়ি থেকে বের হয়। তার বর যাত্রায় তামান্না এন্টার প্রাইজ নামের একটি বাস ছিলো। বাসটি বাড়ির অদূরে বাও নদীর উপর সেতুতে ওঠার সময় উল্টে নদীতে পড়ে যায়। ওই বাসটিতে প্রায় ৩০/৩৫জন বর যাত্রী ছিলেন।

এদিকে বাসটি খাদে পড়ার পর থেকে স্থানীয় লোকজন ও ধুনট ফায়ার সার্ভিস স্টেশনের সদস্যরা সেখানে উদ্ধার অভিযান চালায়। অভিযানকালে সাধন চন্দ্রের মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়। সাধন চন্দ্র ওই বিয়েতে বাদ্যকার হিসেবে অংশ নিয়েছিলেন। এছাড়া রাত সাড়ে ৮টা পর্যন্ত ঘটনাস্থল থেকে আহত অবস্থায় ১০জনকে উদ্ধার করা হয়েছে। তবে তাদের পরিচয় পাওয়া যায়নি।

ধুনট থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) কৃপা সিদ্ধু বালা এতথ্য নিশ্চিত করে জানান, রুদ্রবাড়িয়া গ্রামে বর যাত্রীবাহী বাস উল্টে নদীতে পড়ে যায়। খবর পেয়ে পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসের সদস্যরা স্থানীয় লোকজনের সহায়তা নিয়ে সেখানে উদ্ধার অভিযান চালায়। এঘটনায় সাধন চন্দ্র নামের একজন নিহত এবং অন্তত ১০জন আহত হয়েছেন।